Home / উপজেলা সংবাদ / শাহরাস্তি / শাহরাস্তিতে সাংবাদিককে আটক করে ‘রাতভর নির্যাতন’
চিকিৎসাধীন অবস্থায় আহত সাংবাদিক জসিম উদ্দিন।

শাহরাস্তিতে সাংবাদিককে আটক করে ‘রাতভর নির্যাতন’

দৈনিক ইত্তেফাকের শাহরাস্তি প্রতিনিধি ও দেশ কন্ঠের সহ-সম্পাদক সাংবাদিক মো. জসিম উদ্দিনকে আটক করে ‘রাতভর প্রহার’ করেছে শাহরাস্তি উপজেলার সূচীপাড়া উত্তর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের বহিস্কৃত নেতা ও ইটভাটার মালিক মো. মিজানুর রহমান ও তার সঙ্গীরা।

ঘটনার বিবরণে জানা যায়, শুক্রবার আনুমানিক রাত ১২ টা সাংবাদিক জসিম উদ্দিন ও তার সহযোগী রাসেলসহ বাড়ি ফেরার পথে সূচীপাড় উত্তর ইউনিয়নের ভাই ভাই ব্রিক ফিল্ডের সামনে সড়কের উপর ইটভাটায় কর্মরত মাজি মো. নুরুল ইসলাম মিরাজ মদ খেয়ে মাতলামি করার অবস্থায় সাংবাদিক জসিম উদ্দিন তাকে সর্তক করে।

মাতলামির মাত্রা আরো বেড়ে গেলে পুলিশকে অবহিত করা হয় এবং শাহরাস্তি মডেল থানার উপ-পরিদর্শক সমীর মজুদারের সঙ্গীয় ফোর্স এসে নুরুল ইসলাম মিরাজকে আটক করে থানা নিয়ে যায়।

কিছুক্ষণ পর ইটভাটার মালিক মিজানুর রহমান ঘটনাস্থলে পৌঁছে। তিনি মাদক সেবনের দায়ে আটক ইটভাটা কর্মচারিকে নুরুল ইসলাম মিরাজকে থানা থেকে ছাড়িয়ে আনতে সাংবাদিক জসিমকে চাপ প্রয়োগ করে। এতে সাংবাদিক জসিম অস্বীকৃতি জানালে মিজানসহ ইটভাটার কর্মচারীরা তাকে মারধর করতে শুরু করে।

একপর্যায়ে তারা সাংবাদিক জসিমকে ইট তৈরির চুলায় পুড়িয়ে ফেলার জন্যও চেষ্টা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনা চলা অবস্থায় সাংবাদিক জসিমের সহযোগী রাসেল ফালিয়ে গিয়ে জীবন রক্ষা করে। সাংবাদিক জসিম জানায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ আশ্রাফুজ্জামানের নির্দেশে ও শাহরাস্তি থানা পুলিশ ও সাংবাদিক ঘটনাস্থলে গিয়ে শনিবার (৭ জানুয়ারি) সকাল ১১ টায় তাকে উদ্ধার করে শাহরাস্তি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

বর্তমানে তিনি চিকিৎসাধীন অবস্থায়ে রয়েছেন। বিষয়টি কেন্দ্র করে উপজেলাজুড়ে তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।

এ রির্পোট লেখা পর্যন্ত বিষয়টি ধামা চাপা দিতে একটি মহল জোর তদবির চালাচ্ছে।

এ বিষয়ে সাংবাদিক জসিম কান্নাজড়িত কণ্ঠে জানায়, ‘আমার ওপর রাতভর নির্যাতন চালানো হয়েছে, তারা আমাকে মেরে প্রয়োজনে ৫০ লাখ টাকা জরিবানা দিবে বলে হুমকি দেয়। আমার মা বর্তমানে ঢাকা ফিজি হাসপাতালে চিকিৎসাধীর রয়েছে। মায়ের চিকিৎসার টাকা সংগ্রহ করে বাড়ি ফেরার পথে এ ঘটনাটি ঘটে। আমার সাথে থাকা মোটর সাইকেল, নগদ ১৭ হাজার টাকা, ক্যামেরা, দু’টি মোবাইল সেট নিয়ে গেছে।’

জানা যায়, গত ইউপি নির্বাচনে দলীয় সিদ্ধান্তের বাহিরে নির্বাচন করায় মো. মিজানুর রহমানকে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগগের সাধারণ সম্পাদকের পদ থেকে বহিস্কার করা হয়।

এ বিষয়ে থানায় অভিযোগ দায়েরের প্রস্তুতি চলছে এবং একাধিকবার চেষ্টা করেও অভিযুক্তের বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

শাহরাস্তি করেসপন্ডেন্ট
: আপডেট, বাংলাদেশ সময় ১০: ৫০ পিএম, ৭ জানুয়ারি ২০১৭, শনিবার
ডিএইচ

শেয়ার করুন
x

Check Also

Karadondo

কচুয়ায় মুক্তিযোদ্ধা সনদ জাল করার দায়ে যুবকের ৫ বছর কারাদণ্ড

চাঁদপুরে ...