Home / চাঁদপুর / ৫ম বর্ষে পা রাখলো চাঁদপুর টাইমস
Abdul-Ghoni

৫ম বর্ষে পা রাখলো চাঁদপুর টাইমস

চাঁদপুর টাইমস ৪র্থ বর্ষ পার করে ৫ম বর্ষে পা লাখলো। আধুনিক তথ্য প্রবাহের এ যুগে সংবাদপত্রের জগতে অনলাইন সংবাদ মাধ্যম একটি যুগান্তকারী অধ্যায় রচনা করতে যাচ্ছে। কোনো কোনো ক্ষেত্রে আগের দিনের পঁচা বা বাসি সংবাদ দিয়ে পরের দিন রমরমাভাবে সংবাদপত্র প্রকাশিত হলেও বর্তমানে পাঠকদের একটি বৃহৎ অংশ তা’ গ্রহণ করতে কিছুটা অনীহা রয়েছে।

ফলে দেশের কতিপয় সনামধন্য সাংবাদিকরা কম্পিউটার,ল্যাপটপ কিংবা হাতের মুঠোতে থাকা স্মার্টফোনের বদৌলতে মুহূর্তের মধ্যেই সংবাদ সারা বিশ্বে ছড়িয়ে দিতে সক্ষম হচ্ছে।

আন্তর্জাতিক অঙ্গনে ইরান,ইরাক কুয়েত,সিরিয়া,লেবানন,ফিলিস্তিন,লিবিয়া,টুইনটাওয়ার,আফগানিস্থান পরিস্থিতি ইত্যাদি বিষয়গুলো যখন সারা বিশ্বে আলোড়ন সৃষ্টি করেছিল তখন আন্তর্জাতিক মিডিয়াগুলো সংবাদ পরিবেশনে তাদের গতানুগতিক পদ্ধতি পরিবর্তন করতে বাধ্য হয়।

১৯৮০ দশকে বাংলাদেশে রঙ্গিন স্যাটেলাইট টেলিভিশন যখন চালু হয় তখন থেকে আমাদের দেশের সংবাদ মাধ্যমগুলোর নিউজ পরিবেশনের ধরণ পরিবর্তন করে। ফলে আমাদের দেশের ইলেকট্রনিক্স মিডিয়ার চাহিদা বৃদ্ধি পেতে থাকে এবং প্রিন্টিং মিডিয়ার চাহিদা হ্রাস পায়।

রানা প্লাজা, গার্মেন্টস ফ্যাক্টোরিতে আগুন লাগা ও যুদ্ধাপরাধীদের মৃত্যুদন্ড কার্যকর করার দৃশ্য মিডিয়াতে ফলাও ভাবে প্রচার হওয়ায় ও বিগত দিনের রাজনৈতিক সহিংসতার বিভিন্ন স্পর্শকাতর সংবাদগুলো পাঠক ও শ্রোতাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করার ফলে মানুষের মধ্যেও দৃষ্টিভঙ্গির পরিবর্তন ঘটে ।

এ দৃষ্টিভঙ্গি ও পরিস্থিতিতে ২০১৪ সালের ১ ডিসেম্বর চাঁদপুর জেলার জনপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল চাঁদপুর টাইমস ৪র্থ বর্র্ষে পদার্পণ করে। এ উপলক্ষে মাসব্যাপি কর্মসূচিও হাতে নেয়া হয়েছে । ২০১৪ সালের এ দিনে চাঁদপুর টাইমসের জন্ম।

যুক্তরাষ্ট্র থেকে প্রকাশিত ‘নিউয়র্ক টাইমস’এর নামের সাথে মিল রেখে অনলাইন পোর্টাল ‘চাঁদপুর টাইমস’এর নামকরণ করা হয় এবং সংবাদের নেশায় মগ্ন একঝাঁক তরুণ সংবাদকর্মীর নিরন্তর প্রচেষ্টায় এটি আজ দায়িত্বশীলতার কাতারে এসে পৌঁছেছে।

২০১৪ সালের ১ ডিসেম্বর তৎকালীন চাঁদপুরের জেলা প্রশাসক মো.ইসমাইল হোসেন মহোদয়কে আনুষ্ঠানিক অবহিতকরণ পত্রের মাধ্যমে ‘গতকালের নয় আজকের খবর’শ্লোগান নিয়ে চাঁদপুর টাইমসের যাত্রা শুরু হয়। ২০১৬ সালের মাঝামাঝি এসে পাঠক ও সংবাদকর্মীদের একাধিক প্রস্তাবের প্রেক্ষিতে শ্লোগানটিতে পরিবর্তন এনে ‘সময়ের সাথেই থাকা’ নির্ধারণ করা হয়।

অনেক চড়াই-উৎরাই ও পতিবন্ধকতার মধ্য দিয়ে হাঁটি হাঁটি পা পা করে চাঁদপুর জেলার অন্যতম জনপ্রিয় অনলাইন সংবাদ মাধ্যম চাঁদপুর টাইমস আজকের এ পর্যায়ে এসে পৌঁছেছে।

শুরু থেকেই চাঁদপুর টাইমস অনলাইন সংবাদ মাধ্যমটির প্রকাশক ও সম্পাদক হিসাবে চাঁদপুরের খ্যাতিমান সাংগঠনিক ও সামাজিক ব্যক্তিত্ব কাজী মোহাম্মদ ইব্রাহীম জুয়েল তাঁর বলিষ্ঠ-বস্তুনিষ্ঠ সম্পাদনায় প্রত্যক্ষ পৃষ্ঠপোষকতা দিয়ে বাণিজ্যের বিপরীতে সেবার মানসিকতায়,স্বপ্নদ্রষ্টা হিসেবে মুসাদ্দেক আল আকিবের সুচিন্তিত ব্যবস্থাপনায়,মিজানুর রহমান রানার শৃঙ্খলাপূর্ণ সংবাদ পরিবেশনায়,পোর্টালের প্রাণ আইটি বিভাগকে নিয়ে দেলোয়ার হোসাইনের দক্ষ তত্ত্ববধানে চাঁদপুর টাইমস অতি অল্প সময়ে গণমাধ্যমের কাতারে আসতে সক্ষম হয়। সুচিন্তা ও দক্ষ পরিচালনায় চাঁদপুর টাইমস তাঁদের প্রতিষ্ঠাতার পদমর্যদা দেয়।

বস্তুনিষ্ঠ ও দায়িত্বশীল সংবাদ পরিবেশনের ক্ষেত্রে ইতোমধ্যেই পাঠক সমাজের আস্থা অর্জনে চাঁদপুর টাইমস তার অভিষ্ঠ লক্ষ্যে এগিয়ে যাচ্ছে।

ঘটনা ঘটার পর পরই এর কর্মরত কলম সৈনিকরা চাঁদপুর টাইমস সংবাদ পরিবেশনে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে প্রাধান্য দিয়ে থাকে। যাদের রোদ-বৃষ্টি কোনো কিছুই দমিয়ে রাখতে পারে না।

এছাড়া শুরু থেকে নিবিড়ভাবে দায়িত্ব পালন করছেন-ব্যবস্থাপনা সম্পাদক আসমা ইব্রাহীম,সহ-সম্পাদক আবদুল গনি,মডারেটর আবদুস সালাম, র্যুগ্ম-বার্তা সম্পাদক আশিক বিন রহিম, সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট শরীফুল ইসলাম।

পাশাপাশি জেলা শহরসহ উপজেলা থেকে প্রতিদিনের এ মুর্হুতের সংবাদ পরিবেশন করে চাঁদপুর টাইমসকে যারা কাধে নিয়ে সামনের দিকে এগিয়ে চলছেন তারা হলেন-স্টাফ করেসপন্ডেন্ট কবির হোসেন মিজি,মাজহারুল ইসলাম অনিক ও করেসপন্ডেন্ট আনোয়ারুল হক ।

চাঁদপুর সদর থেকে এমএ শাকুর,হাইমচর থেকে বিএম ইসমাইল, হাজীগঞ্জ থেকে জহিরুল ইসলাম জয়, কচুয়া থেকে জিসান আহমেদ নান্নু,শাহরাস্তি থেকে মাহবুব আলম,মতলব দক্ষিণ থেকে মাহফুজ মল্লিক,মতলব উত্তর থেকে মো.কামাল হোসেন,ফরিদগঞ্জ থেকে আতাউর রহমান সোহাগ ও এবি সিদ্দিক।

ঠাকুরগাঁও থেকে কবিরুল ইসলাম কবির,ঝিনাইদহ থেকে জাহিদুর রহমান তারিক,মালয়েশিয়া থেকে বশির আহমেদ ফারুক,সৌদি আরব থেকে সাগর চৌধুরী।

পোর্টালটির সম্পাদক কাজী মোহাম্মদ ইব্রাহীম জুয়েল একজন রাজনৈতিক মতাদর্শের ব্যক্তি হয়েও সংবাদের ক্ষেত্রে বস্তুনিষ্ঠ ও সংবাদপত্রের নীতিমালা দল বা গোষ্ঠি নিরপেক্ষতায় যথেষ্ট আন্তরিক্ত থাকায় এটি এখন জেলার অন্যান্য অনলাইন পোর্টালের তুলনায় পাঠক প্রিয়তার শীর্ষে অবস্থান করে নিয়েছে।

সর্বোপরি চাঁদপুর টাইমসের সম্পাদনা বিভাগ সকল মতের প্রতি সহিষ্ণুতা প্রদর্শনপূর্বক সংবাদ পরিবেশনে বদ্ধপরিকর।

এছাড়া চাঁদপুর টাইমস পরিবারের প্রতিবেদকদের প্রতি অনেকগুলো নির্দেশনার মধ্যে সর্বাধিক গুরুত্বের সাথে যে নির্দেশনাটি দিয়ছে,সেটি হলো কোনো ব্যক্তি, দল,গোষ্ঠি বা সংস্থার বিরুদ্ধে অভিযোগ নিয়ে সংবাদ পরিবেশনের ক্ষেত্রে অবশ্যই সংশ্লিষ্টদের আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দিয়ে প্রতিবেদনের তাদের বক্তব্য সংযুক্ত করা।

যা রীতিমতো চাঁদপুর টাইমস অনুসরণ করছে এবং যে কেউ তার বিরুদ্ধে প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ প্রকাশ করতে চাইলে তাকে র্শতসাপেক্ষে পূর্ণ সুযোগ দেয়ার নজির রয়েছে।

এছাড়া চাঁদপুর টাইমস ২০১৬ সালে চাঁদপুর প্রেস ক্লাবে দেশের প্রথম অনলাইন সাংবাদিকতার ওপর প্রশিক্ষণ কর্মশালার আয়োজন করে । ওই কর্মশালায় ঢাকার জাতীয় গণমাধ্যম অনলাইনের বেশ ক’জন প্রতিথযশা ট্রেনার সাংবাদিক অংশগ্রহণ করেছিল। যা স্থানীয় পত্রিকার সম্পাদকের সার্বিক দিকনির্দেশনায় পৃষ্ঠপোষকতায় তা’ সফলভাবে সম্পন্ন হয় ।

চাঁদপুর টাইমসের বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশনার ক্ষেত্রে পক্ষপাতুষ্টের ঊবের্ধ থাকার কারণে বর্তমানে জেলা প্রশাসন,পুলিশ প্রশাসন,উপজেলা প্রশাসন,রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ,সাংবাদিক ও সংবাদপত্রসেবী,মুক্তিযোদ্ধা সংসদ,উপজেলার সকল জনপ্রতিনিধি,ইউপি জনপ্রতিনিধি,শিক্ষক,সাংগঠনিক ব্যক্তিবর্গ,ব্যবসায়ীসহ সকল মহলের কাছে পাঠক প্রিয়তা অর্জনে চাঁদপুর টাইমস সক্ষমতার পরিচয় দিতে পেরেছে ।

চাঁদপুর প্রেস ক্লাব নেতৃবৃন্দ,জাতীয় ইলেকট্রনিক্স ও প্রিন্টিং মিডিয়া,চাঁদপুর থেকে প্রকাশিত সকল দৈনিক ও সাপ্তাহিক পত্রিকাগুলোর সম্পাদক ও কর্মরত সাংবাদিকদের সাথে চাঁদপুর টাইমস পরিবারের একটি চমৎকার সুহৃদ সম্পর্ক বিদ্যমান থাকায় এর অগ্রযাত্রার ক্ষেত্রে মাইলফলক হিসেবে কাজ করছে।

১৯৪৭ সালে দেশ ভাগের পর শেরে-এ-বাংলা এ কে ফজলুল হক কোনো এক প্রেক্ষাপটে বলেছিলেন, ‘Bengal thinks today,India thinks tomorrow’ ঠিক তেমনি বর্তমান বিজ্ঞান ও আধুনিক প্রযুক্তি নির্ভর আইটি যুগে চাঁদপুরের বিভিন্ন অপরাধমূলক সংবাদ, দুর্ঘটনা,ছিনতাই, মাদক,বাল্যবিবাহ,জঙ্গি,খেলাধুলা,সাংগঠনিক,আইন-শৃংখলা পরিস্থিতি,রাজনৈতিক, সামাজিক ও অর্থনৈতিক,সমাজবিরোধী যে কোনো ঘটনাবলীর সংবাদ, উন্নয়নমূলক, কমিউনিটি পুলিশিং, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, ধর্মীয়, সামাজিক অবক্ষয়রোধ ও সামাজিক সচেতনামূলক প্রভৃতি সংবাদ দেশের জাতীয় ও আঞ্চলিক সংবাদপত্রে প্রকাশিত হওয়ার অনেক আগেভাগেই সঠিকতথ্য অনলাইন সংবাদমাধ্যমগুলো পাঠকের কাছে পৌঁছে দিতে পারছে ।

চাঁদপুর টাইমসও এ সারিতে এমনি ভূমিকা পালন করে পাঠকের চাহিদা পূরণ করতে নিরন্তর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।

চাঁদপুর টাইমস বাংলাদেশ এ্যালেক্সা জরিপে একটি বিশেষ মর্যাদাপূর্ণ অবস্থানে থাকায় চলতি বছরের ১১ ফেব্রুয়ারি তথ্য অধিদপ্তর থেকে সম্পাদক কাজী মোহাম্মদ ইব্রাহীম জুয়েল প্রেস ইনফরমেশন ডিপার্টমেন্ট অ্যাক্রিডিটেশন কার্ডের মর্যাদা দেয়া হয় । দায়িত্বশীল ও নিরপক্ষ সংবাদ পরিবেশনের ক্ষেত্রে বস্তুনিষ্ঠতার জন্য দশম জাতীয় সংসদের দ্বাদশ অধিবেশনের সাংবাদিক পাসও পেয়েছেন।

পাঠকদের আগ্রহের দিক বিবেচনা করে চাঁদপুর টাইমসের সংবাদকর্মীরা সঠিক দায়িত্ব পালন করলে জেলা ও দেশের গন্ডি ছাড়িয়ে অনলাইন সংবাদ প্রেরণে একদিন হয়তো দেশের শীর্ষস্থানীয় অনলাইন গণমাধ্যমগুলোর সারিতে স্থান পাবে। আর আমরা সে দিনের অপেক্ষায় নিরলসভাবে কাজ করে যাবার প্রত্যাশায় রইলাম ।

লেখক-আবদুল গনি, সহ-সম্পাদক,চাঁদপুর টাইমস ।
৩০ নভেম্বর ২০১৮ ,শুক্রবার

শেয়ার করুন

Leave a Reply