Home / উপজেলা সংবাদ / কচুয়া / কচুয়ায় ঝড়ে পড়ে যাওয়া বিদ্যালয়ের পাঠদান বন্ধ
kachua

কচুয়ায় ঝড়ে পড়ে যাওয়া বিদ্যালয়ের পাঠদান বন্ধ

চাঁদপুরের কচুয়া উপজেলায় কালবৈশাখী ঝড়ে লন্ড-ভন্ড হয়ে যাওয়া পাথৈর উচ্চ বিদ্যালয়ের পাঠদান বন্ধ হয়ে গেছে।

ওইদিনের ঘটনায় টিনশেড ভবনটি নষ্ট হওয়ার পাশাপাশি ১৫ জন শিক্ষার্থীও মারাত্মক আহত হয়েছেন।

আহতের মধ্যে মাথায় আঘাত প্রাপ্ত ছাত্রী জাকিয়া আক্তার ঢাকার ডেন্টাল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। প্রচÐ বাতাসের বেগে উড়ে গেছে বিদ্যালয়ের পাঠদানের শ্রেনী কক্ষগুলোও।

খবর পেয়ে শুক্রবার স্থানীয় সাংসদ, সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ড. মহীউদ্দীন খান আলমগীর পরিদর্শনে এসে নতুন একাডেমিক ভবন নিমানের আশ্বস্ত করেছেন। কিন্তু কবে হবে বিদ্যালয়ের ভবন,এমনি দুশ্চিন্তায় রয়েছে অভিভাবকরা।

এমন পরিস্থিতিতে বিদ্যালয়ের পাঠদান বন্ধ রয়েছে গত কয়েক দিন ধরে। গতকাল মঙ্গলবার সকালে শিক্ষার্থীরা শ্রের্ণী কক্ষে না যেতে পেরে দাঁড়িয়ে ছিলো খোলা আকাশের নিচে। বৃষ্টিতে ভিজে বাধ্য হয়ে ফিরে যেতে হয়েছে বাড়িতে।

বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির শিক্ষার্থী ফেরদৌসি আক্তার ও সুমাইয়া আক্তার বলেন, ঝড়ে বিদ্যালয় ভবন উড়ে যাওয়ায় ও ভেঙ্গে পড়ায় পাঠদান করা যাচ্ছে না। ফলে যথাসময়ে সিলেবাস শেষ করা সম্ভব হবে না। তারা দ্রæত বিদ্যালয়টি মেরামত চায়।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোসা. সালেহা আক্তার জানান,ঝড়ে বিদ্যালয় ভবন ভেঙ্গে যাওয়ায় বর্তমানে ঝড়-বৃষ্টির দিনে পাঠদানে মারাত্মক সমস্যা হচ্ছে।

ঘটনার পর স্থানীয় সাংসদ, সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ড.মহীউদ্দীন খান আলমগীর ও উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তাগণ পরিদর্শন করেছেন এবং দ্রæত বিদ্যালয় ভবন নির্মাণের প্রতিশ্রæতি দিয়েছেন।

প্রতিবেদক- জিসান আহমেদ নান্নু

শেয়ার করুন

Leave a Reply