Home / খেলাধুলা / অভিষেকেই নাঈমের বিশ্বরেকর্ড

অভিষেকেই নাঈমের বিশ্বরেকর্ড

অভিষেকটা হতে পারতো চলতি বছরের জানুয়ারিতেই। বছরের শুরুতে নিউজিল্যান্ডে অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ খেলার সময় তাকে হুট করেই দেশে ফেরত আনা হয়েছিল শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট দলে জায়গা দিয়ে।

চমক জাগিয়ে স্কোয়াডে নিলেও সেবার সেরা একাদশে খেলার সুযোগ পাননি ১৭ বছর বয়সী অফ স্পিনার নাঈম হাসান। সুযোগ পেলেন দশ মাস পর। আর একাদশে জায়গা পেয়েই বিশ্বরেকর্ড গড়ে ফেললেন চট্টগ্রামের এ তরুণ ক্রিকেটার।

রোস্টন চেজকে লেগ বিফোরের ফাঁদে ফেলে শুরু, জোমেল ওয়ারিকানকে দিয়ে পূর্ণ হলো পাঁচ উইকেট। মাঝে তিনি সাজঘরে ফেরান সুনিল অ্যামব্রিস, দেবেন্দ্র বিশু ও কেমার রোচকে। নিজের প্রথম ম্যাচেই পাঁচ উইকেট নিয়ে সর্বকনিষ্ঠ বোলার হিসেবে অভিষেক টেস্টে পাঁচ উইকেট নেয়ার বিশ্বরেকর্ড গড়েছেন এ তরুণ।

২০১১ সালে ১৮ বছর ৬ মাস ৯ দিন বয়সে নিজের অভিষে টেস্টে ৭৯ রানে ৬ উইকেট নিয়েছিলেন অস্ট্রেলিয়ান পেসার প্যাট কামিন্স। এতদিন ধরে এটিই ছিলো সবচেয়ে কম বয়সে অভিষেকে পাঁচ কিংবা তার বেশি উইকেট নেয়ার রেকর্ড। বাংলাদেশের নাঈম মাত্র ১৭ বছর ১১ মাস ২০ দিন বয়সে পাঁচ উইকেট নিয়ে গড়লেন নতুন রেকর্ড।

কামিন্স-নাঈম ছাড়াও ১৮ বছরের মধ্যে অভিষেকেই পাঁচ উইকেট নেয়ার রেকর্ড রয়েছে আরও তিন বোলারের। ১৯৯৬ সালে পাকিস্তানের শহিদ নাজির ১৮ বছর ১০ মাস ১৩ দিন বয়সে, ১৯৯৮ সালে একই দেশের শহিদ আফ্রিদি ১৮ বছর ৭ মাস ২১ দিন বয়সে এবং ২০১৬ সালে বাংলাদেশের মেহেদি হাসান মিরাজ ১৮ বছর ১১ মাস ২৬ দিন বয়সে অভিষেক ম্যাচেই পাঁচ উইকেট নেয়ার কৃতিত্ব দেখিয়েছিলেন।

Leave a Reply

ইন্টারনেট কানেকশন নেই