Home / চাঁদপুর / কমিটি নিয়ে দ্বন্দ্ব : নয়াপল্টনে চাঁদপুর বিএনপির দু’গ্রুপে উত্তেজনা
ঢাকা নয়াপল্টনস্থ বিএনপির কার্যালয়ে রোববার বিকেলে জেলা সফরের অংশ হিসেবে চাঁদপুর জেলার দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত দলনেতাদের নিয়ে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মীর মোহাম্মদ নাসির উদ্দিন মতবিনিময় সভা করেন।

কমিটি নিয়ে দ্বন্দ্ব : নয়াপল্টনে চাঁদপুর বিএনপির দু’গ্রুপে উত্তেজনা

ঢাকা নয়াপল্টনস্থ বিএনপির কার্যালয়ে জেলা কমিটি নিয়ে দ্বন্দ্বে চাঁদপুর বিএনপির দু’গ্রুপে উত্তেজনা হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে।

কমিটির দ্বন্দ্ব নিরসনে মতবিনিময় সভায় প্রবেশকে কেন্দ্র করে সেখানে অবস্থানরত চাঁদপুর জেলার দু’গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা, হাতাহাতি, বিএনপির কার্যালয়ের দরজা ও আসবাপত্র ভাংচুরের চেষ্টা চালানো হয়েছে বিভিন্ন সূত্র থেকে জানা গেছে।

সভায় সর্বসম্মতিক্রমে আগামী ১৪ অথবা ২০ মে চাঁদপুর জেলায় কর্মীসভা অনুষ্ঠানের সিদ্বান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

উত্তেজনা ও হাতাহাতির ঘটনার বিষয়য়ে বিএনপির নির্বাহী কমিটির সদস্য শফিকুর রহমান ভূইয়ার কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, চাঁদপুর জেলা বিএনপির আহ্বায়ক শেখ ফরিদ আহমেদ মানিক, যুগ্ম-আহ্বায়ক অ্যাড. সলিম উল্লাহ সেলিম, মাহবুবুল আনোয়ার বাবলু, আক্তার হোসেন মাঝি, সলিমুস সালাম, শুক্কুর পাটওয়ারী, হুমায়ুন কবির, ফেরদৌস আলম বাবু, মুনির চৌধুরীসহ জেলা বিএনপির যুগ্ম-আহ্বায়কদের নিয়ে সভায় প্রবেশ করে উপস্থিত অন্যদেরকে সভায় থাকতে বাধা প্রদান করে।

একপর্যায়ে চাঁদপুর জেলার দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মীর মোহাম্মদ নাসির উদ্দিন সকলকে রুম থেকে বের করে দেন।

সে সময় শেখ ফরিদ আহমেদ মানিকসহ সকলে রুম থেকে বের হয়ে উত্তেজনা সৃষ্টি করে এবং কার্যালয়ের দরজা ভাংচুর করে। কার্যালয়ে ভাংচুরের ঘটনাকে কেন্দ্র করে সেখানে উপস্থিত থাকা বিএনপির অন্য নেতাকর্মীদের সাথে তাদের হাতাহাতি ও লাঞ্চিত হওয়ার ঘটনা ঘটেছে বলে আমরা পরবর্তীতে শুনেছি।

পরে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মীর মোহাম্মদ নাসির উদ্দিন শেখ ফরিদ মানিককে সভায় ঢেকে নিয়ে আসেন।

এ বিষয়ে বিএনপির নির্বাহী কমিটির প্রবাসী কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক ও চাঁদপুর জেলা বিএনপির আহ্বায়ক শেখ ফরিদ আহমেদ মানিক বলেন, ‘ঢাকা নয়াপল্টনস্থ বিএনপির কার্যালয়ে দুটি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রথমে দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত দলনেতাদের নিয়ে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মীর মোহাম্মদ নাসির উদ্দিন বিকেল সারে ৪ টায় একটি সভা করেন। এর প্রায় পৌনে একঘন্টা পর চাঁদপুর জেলা বিএনপির নেতাকর্মীদের সাথে আরেকটি সভা করেন। সভায় সর্বসম্মতিক্রমে আগামী ১৪ অথবা ২০ মে চাঁদপুর জেলায় কর্মীসভা অনুষ্ঠানের সিদ্বান্ত হয়েছে বলে তিনি জানান।

দু’গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা, হাতাহাতি ও বিএনপি কার্যালয় ভাংচুরের বিষয়ে শেখ ফরিদ আহমেদ মানিক বলেন, ‘এটা নিজেদের মধ্যে একটু ভুল বুঝাবুঝি হয়েছে। আর রাজনৈতিক দলের মধ্যে একটু ভুল ভুঝাবুঝি হতেই পারে। এটা কোনো বিষয় না।’

জানা যায়, কমিটি নিয়ে দ্বন্দ্ব, বর্তমান কমিটির একক আধিপত্য নিয়ে দীর্ঘদিন থেকে চাঁদপুর বিএনপির দু’গ্রুপে বিভক্ত রয়েছে। এরইমধ্যে দু’গ্রুপেই জেলা শহরে অনেকটা আলাদা করে সভা-সমাবেশ করে গেলেও এমন উত্তেজনা পরিস্থিতি তৈরি হতে দেখা যায়নি।

কমিটির দ্বন্দ্ব নিরসনে বিএনপির কেন্দ্রীয় সিদ্বান্ত অনুয়ায়ী জেলা সফরের অংশ হিসেবে চাঁদপুর জেলার দ্বায়িত্বপ্রাপ্ত দল নেতাদের নিয়ে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মীর মোহাম্মদ নাসির উদ্দিন রোববার (৭ মে) বিকাল ৪টায় ঢাকা নয়াপল্টনন্থ বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে মতবিনিময় সভা করে। সভায় চাঁদপুর জেলা সফরে নিমিত্বে¡ গঠিত টিমের অনান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় সর্বসম্মতিক্রমে আগামী ১৪ মে রবিবার চাঁদপুর জেলা সফরের মাধ্যমে কর্মীসভা অনুষ্ঠানের সিদ্বান্ত হয়েছে বলে জানান বিএনপির সহ-দপ্তর সম্পাদক বেলাল আহমেদ।

সভায় উপস্থিত ছিলেন, বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা অ্যাড. মো. বোরহান উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক কর্নেল (অব.) আনোয়ারুল আজিম, ব্যাকিং ও রাজস্ব বিষয়ত সম্পাদক লায়ন হারুনুর রশিদ, প্রবাসী কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক শেখ ফরিদ আহমেদ মানিক, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মোস্তফা মিয়া, মো. আবদুল আউয়াল খান, সহ-তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক জেড খান মো. সিরাজ উদ্দিন নসু, জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ইসমাইল হোসেন বেঙ্গল, ইঞ্জিনিয়ার মমিনুল হক, শফিকুর রহমান ভূইয়া, মোতাহের হোসেন পাটওয়ারী, এস এম কামাল উদ্দিন, মোস্তফা খান সফরী, মাহবুবুল ইসলাম স্বপনকে এম রফিকুল ইসলাম, এম এ মতিন প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

টুইটারে ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন খালেদা

শাওয়াল ...