Home / সারাদেশ / দিল্লীর সার্ক সাহিত্য সম্মেলনে যাচ্ছেন চাঁদপুরের দু’লেখক
Manik-asik

দিল্লীর সার্ক সাহিত্য সম্মেলনে যাচ্ছেন চাঁদপুরের দু’লেখক

ভারত সরকার ও সার্ক রাইটার্স ফাউন্ডেশনের আমন্ত্রণে সার্ক সাহিত্য সম্মেলনে যোগ দিতে আগামি ১৮ অক্টোবর নয়াদিল্লী যাচ্ছেন চাঁদপুরের কবি ও লেখক মাইনুল ইসলাম মানিক ও আশিক বিন রহিম।

এ বিষয়ে তাঁরা দু’জনই ভারত সরকার ও সার্ক রাইটার্স ফাউন্ডেশন কর্তৃক আমন্ত্রণপত্র পেয়েছেন। সার্ক রাইটার্স ফাউন্ডেশনের সভাপতি অজিত কাউর স্বাক্ষরিত পত্রে তাদেরকে আগামি ১৮. ১৯ ও ২০ অক্টোবর আয়োজিত এ সাহিত্য সম্মেলনে যোগদানের আমন্ত্রণ জানানো হয়।

ভারত সরকারের অর্থায়নে ও ব্যবস্থপনায় আয়োজনকৃত এ সম্মেলনে দক্ষিণ এশিয়ার ৮ টি দেশের আমন্ত্রিত লেখকগণ অংশগ্রহণ করবেন। এতে বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের সদস্য হিসেবে থাকছেন চাঁদপুরের এ দু’জন লেখক।

এবারের সার্ক সাহিত্য সম্মলনের প্রতিপাদ্য বিষয়:’হিউম্যানিজম : কালচার, ইমোশনস অ্যান্ড লিটারেচার’। এ প্রতিপাদ্য বিষয়ের ওপর আমন্ত্রিত লেখকদের সাথে কবি ও লেখক মাইনুল ইসলাম মানিক এবং আশিক বিন রহিম প্রত্যেকে ১০ মিনিট করে সমকালিন সাহিত্য বিষয়ে তাদের লিখিত নিবন্ধ পাঠ করবেন।

এ সাহিত্য সম্মেলনের মধ্য দিয়ে সার্কভূক্ত দেশগুলোর লেখকদের মধ্যে পারস্পরিক সম্পর্ক স্থাপন ও লেখালেখির মিথস্ক্রিয়া তৈরি করাই অন্যতম লক্ষ্য।

এ বিষয়ে সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন, কবি ও লেখক মাইনুল ইসলাম মানিক ও আশিক বিন রহিম।

প্রসঙ্গত , কবি ও লেখক ও গল্পকার আশিক বিন রহিম তরী নামে একটি লিটলম্যাগ সম্পাদনা করেন।। পেশায় একজন সাংবাদিক। তিনি সাহিত্য মঞ্চের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক । ২০১৯ এর জাতীয় গ্রন্থমেলায় তার প্রথম কাব্যগ্রন্থ ’পদ্মপ্রয়াণ’ প্রকাশিত হয়েছে। ২০২০ এর গ্রন্থমেলায় তাঁর গল্পগ্রন্থ ‘রৌদ্র ছায়ার খেদ’ এবং একটি গবেষণামূলক গ্রন্থ প্রকাশের অপেক্ষায়।

আশিক বিন রহিম সাহিত্যকর্মের স্বীকৃতি স্বরূপ পেয়েছেন : চাঁদপুর সাহিত্য একাডেমি পুরুস্কার, ফরিদগঞ্জ লেখক ফোরাম পদক,মোহনবাঁশী ছড়া উৎসব পুরস্কার, ছায়াবানী মিডিয়া কমিউনেকেশন সম্মাননা, চতুরঙ্গ ইলিশ উৎসব পুরস্কার, নতুন কুঁড়ি লেখক সম্মাননা, নাগরিক বার্তা লেখক সম্মাননাসহ অসংখ্য পুরস্কার।

কবি ও অনুবাদক মাইনুল ইসলাম মানিক শিল্প-সাহিত্যের সংগঠন সাহিত্য মঞ্চের সভাপতি। তিনি পেশায় ইংরেজি প্রভাষক। তাঁর প্রকাশিত গ্রন্থ :স্বপ্নের শঙ্খচিল (কাব্যগ্রন্থ),দশ নোবেলজয়ী লেখকের সাক্ষাৎকার (অনুবাদগ্রন্থ,পাঞ্জেরী পাবলিকেশন্স,বইমেলা ২০১৮) এবং মধ্যপ্রাচ্যের সমকালীন গল্প (অনুবাদগ্রন্থ,মাওলা ব্রাদার্স,একুশে বইমেলা ২০১৯)।

সাহিত্যকর্মের স্বীকৃতি হিসেবে পেয়েছেন নাগরিক বার্তা লেখক সম্মাননা, ফরিদগঞ্জ লেখক ফোরাম পদক, নতুন কুঁড়ি লেখক সম্মানা, ছায়াবানী মিডিয়া কমিউনিকেশন লেখক সম্মানা, চতুরঙ্গ ইলিশ উৎসব লেখক সম্মানাসহ অসংখ্য পুরস্কার।

করেসপন্ডেন্ট, ১৩ অক্টোবর ২০১৯

ইন্টারনেট কানেকশন নেই