Home / সারাদেশ / কুমিল্লায় বিভিন্ন প্রত্নতাত্ত্বিক স্থাপনা পরিদর্শন ভারতীয় ডেপুটি হাইকমিশনার
bisshodhip

কুমিল্লায় বিভিন্ন প্রত্নতাত্ত্বিক স্থাপনা পরিদর্শন ভারতীয় ডেপুটি হাইকমিশনার

কুমিল্লা অঞ্চলের বিভিন্ন প্রত্বতাত্ত্বিক স্থাপনা যথাযথভাবে সংরক্ষণ, বিকাশ ও উন্নয়নের লক্ষ্যে ভারত-বাংলাদেশ যৌথ কর্মপরিকল্পনা, মতবিনিময় সভা ও যৌথ সাংস্কৃতিক কর্মকা-ের আশ্বাস দিয়েছেন ঢাকাস্থ ভারতীয় হাইকমিশনের ডেপুটি হাইকমিশনার বিশ্বদ্বীপ দে। তিনি কুমিল্লায় দু’দিনের সফরে এসে বিভিন্ন ঐতিহাসিক স্থাপনা পরিদর্শনকালে এসব কথা বলেন।

এসময় তিনি বলেন, কুষ্টিয়ার সিলাইদহের রবীন্দ্র কুঠিবাড়িতে ভারত সরকার যেভাবে সহযোগিতা দিয়েছে কুমিল্লাতেও এ ধরণের সহযোগিতা প্রদান করবে ভারত সরকার। এলক্ষ্যে খুব শীঘ্রই এক উচ্চপর্যায়ের বৈঠকে বসার কথাও তিনি জনান।

ডেপুটি হাইকমিশনার বিশ্বদ্বীপ দে গতকাল দু’দিনের সফরে এসে কুমিল্লার বিভিন্ন ঐতাহাসিক স্থাপনা, প্রতœতাত্ত্বিক নিদর্শন ও পর্যটন এলাকা সমূহ পরিদর্শন করেন। হাইকমিশনের কমার্শিয়াল অফিসার ডাক্তার প্রমেশ বসাল এসময় তার সাথে ছিলেন।

প্রতœতত্ত্ব অধিদপ্তরের কুমিল্লা অঞ্চলের (দেশের পূর্বাঞ্চলীয়) আঞ্চলিক পরিচালক ড. মো: আতাউর রহমান বিশ্বদ্বীপ দে’কে ময়নামতি জাদুঘর, শালবন বৌদ্ধ বিহার, নব শালবন বিহার, রূপবান মুড়া মন্দির ও বিহার, ইটাখোলা মন্দির ও বিহার, বাংলাদেশ পল্লী উন্নয়ন একাডেমী (বার্ড), রাণীর কুঠিপ্রভৃতি ঐতিহাসিক স্থান পরিদর্শন ঘুরে দেখান।

এ সময় প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের আঞ্চলিক পরিচালক অফিসের ফিল্ড অফিসা মোঃ শাহীন আলম, ময়নামতি জাদুঘরের কাস্টোডিয়ান মোঃ হাফিজুর রহমান, সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠন ঐতিহ্য কুমিল্লার প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক জাহাঙ্গীর আলম ইমরুল, নির্বাহী সদস্য আহসান হাবিবসহ প্রতœতত্ত্ব অধিদপ্তরের অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারী উপস্থিত ছিলেন।

পরিদর্শন শেষে সন্তোষ প্রকাশ করেন ডেপুটি হাইকমিশনার বিশ্বদ্বীপ দে। এসময় ঐতিহ্য কুমিল্লার পরিচালক জাহাঙ্গীর আলম ইমরুলের সাথে আলাপকালে বিশ্বদ্বীপ দে বলেন, প্রখ্যাত সংগীতজ্ঞ শচীন দেববর্মণ এর কুমিল্লার বাড়িসহ বিভিন্ন ঐতিহাসিক স্থাপনা ও প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শনসমূহ সুরক্ষায় এবং সাংস্কৃতিক কর্মকা-ে সহযোগিতা প্রদানের মধ্য দিয়ে কুমিল্লায় সাংস্কৃতিক-প্রতœ-পর্যটন বলয় তৈরীতে ভুমিকা রাখতে চায় ভারত সরকার।

এর আগের দিন তিনি কুমিল্লা শহরে অবস্থিত জগন্নাথপুর সতের রত্ন মন্দির, ঈশ্বর পাঠশালা ও রামমালা গ্রন্থগার, সংগীতজ্ঞ শচীন দেব বর্মণের বাড়ি, গান্ধিজী আশ্রম পরিদর্শন করেন। এ সময় প্রতœতত্ত্ব অধিদপ্তরের আঞ্চলিক পরিচালক ড. মো: আতাউর রহমান, আদর্শ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কানিজ ফাতেমা উপস্থিত ছিলেন।

কুমিল্লা করেসপন্ডেন্ট, ১২ অক্টোর ২০১৯

ইন্টারনেট কানেকশন নেই