Home / বিশেষ সংবাদ / ঢাকায় ব্যবসায়ীর বাসায় সোয়া কোটি টাকা দামের ঘড়ি, অতঃপর…
সোয়া কোটি টাকা

ঢাকায় ব্যবসায়ীর বাসায় সোয়া কোটি টাকা দামের ঘড়ি, অতঃপর…

রাজধানীর বারিধারায় এক ব্যবসায়ীর বাসা থেকে তিনটি দামি ঘড়ি চুরি হয়েছিল। চুরি হওয়া একটি ঘড়ির দাম সোয়া কোটি টাকা, আরেকটি ৫০ লাখ। তৃতীয় ঘড়িটি ছিল সোনা দিয়ে মোড়ানো। সেই ঘড়িটি গলিয়ে সোনা বিক্রি করে চোরের দল।

২৩ জুন মঙ্গলবার রাতে পুলিশ গুলশান ও ভাটারায় অভিযান চালিয়ে এই চোরের দলকে গ্রেপ্তার করেছে। তাদের কাছ থেকে গ্রিল কাটার রেঞ্চ, দামি ঘড়ি দুটি ও ঘড়ি বিক্রির টাকাসহ বিভিন্ন মালামাল উদ্ধার করেছে। যাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে তারা হলেন-মিজানুর রহমান, উজ্জল মিয়া ও তাজুল ইসলাম ওরফে লিটন। এরা পেশাদার চোর বলে পুলিশ জানিয়েছে।

গুলশান থানার পুলিশ জানায়, গত ৮ জুন গুলশানের বারিধারার পার্ক রোডের একজন ব্যবসায়ীরার বাসায় চুরির ঘটনায় থানায় মামলা করা হয়। বিভিন্ন তথ্য-উপাত্তের ভিত্তিতে গুলশান থানার পুলিশ মঙ্গলবার রাতে প্রথমে মিজানুর রহমান নামে একজনকে গ্রেপ্তার করে। পরে তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে ভাটারা থানার ফাঁসেরটেক বালুর মাঠ থেকে সহযোগী উজ্জল মিয়া ও তাজুল ইসলাম ওরফে লিটনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গুলশান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. কামরুজ্জামান বুধবার বলেন, উদ্ধার করা এটি একটি বিদেশি ঘড়ির দাম সোয়া কোটি টাকা, আরেকটি ৫০ লাখ টাকা। আরেকটি সোনার ঘড়ি চোরচক্র গলিয়ে এক লাখ তিন হাজার টাকা বিক্রি করে দেয়। তাদের কাছ থেকে সেই টাকাও উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশের ওই কর্মকর্তা বলেন, চোরচক্রে আরও কারা আছে তা জানতে সবাইকে রিমান্ডে আনা হচ্ছে।

ঢাকা ব্যুরো চীফ, ২৪ জুন ২০২০

ইন্টারনেট কানেকশন নেই