Home / উপজেলা সংবাদ / হাইমচর / ২০১৭ সালের মধ্যে হাইমচরে বিনামূল্যে বিদ্যুতায়ন করা হবে
ghore ghore biddot

২০১৭ সালের মধ্যে হাইমচরে বিনামূল্যে বিদ্যুতায়ন করা হবে

চাঁদপুরের হাইমচর উপজেলার চরভৈরবী ইউনিয়নে ৭ ও ৯নং ওয়ার্ড এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়ার নামে নিরিহ মানুষজনের কাছ থেকে মিটার প্রতি ৪/ ৫হাজার টাকা অর্থ হাতিয়ে নেয়ার প্রতিবাদে স্থানীয় এলাকাবাসীর উদ্যোগে শরআলির মোড়ে সচেতনতা মূলক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার (২৫ অক্টোবর) বিকেল ৪টায় শহর আলির মোড়ে অনুষ্ঠিত এ সভায় উপজেলা চেয়ারম্যান, চাঁদপুর পল্লী বিদ্যুৎ জিএম, ইউএনও হাইমচর, ওসি হাইমচরসহ প্রশাসনিক কর্মকর্তা রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ ও জনপ্রতিনিধিরা বক্তব্য রাখেন।

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, সরকারের ভিশন ২০২১ বাস্তবায়নে ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ প্রকল্পের আওতায় ২০১৭ সালের মধ্যে সমগ্র হাইমচরে বিনামূল্যে বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়া হবে। সংযোগ দেয়ার নামে কোন দালালকে টাকা পয়শা না দিয়ে টাকা দাবী কারি দালালদের আটক করে আইনের হাতে সোপর্দ করার আহ্বান জানান।

ইউনিয়ন আ’লীগ সভাপতি আহমদ আলি মাষ্টারের সভাপতিত্বে ও যুবলীগ নেতা ইউসুফ জুবায়ের শিমুলের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সভায় প্রধান অতিথি উপজেলা চেয়ারম্যান নুর হোসেন পাটওয়ারী বলেন, প্রধান মন্ত্রী জননেত্রী শেখহাসিনা সরকারের ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ সেবা আমাদের এমপি ডাঃ দীপু মনির মাধ্যমে বিনা মূল্যে আপনাদের কাছে পৌছে দেয়াই আমাদের দায়িত্ব। চরভৈবী বাসীর প্রধানতম দাবি সড়ক নির্মান চলছে, নদী ভাঙ্গন প্রতিরোধ প্রকল্প (জালিয়ারচর) বাস্তাবায়নে কাজ চলছে, বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়া হবে। আমাদের অভিভাবক ডাঃ দীপু মনির নির্দেশনায় উল্লেখিত কাজ বাস্তবায়নে ওনার একজন কর্মী হিসেবে কাজ করছি। আপনাদের দাবী দাওয়া পুরনে ডাঃ দীপু মনি এমপি কাজ করছে। তাই আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে শেখ হাসিনার প্রার্থী ডাঃ দীপু মনিকে নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে আবারও বিজয়ী করার আহ্বান জানাই।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে চাঁদপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির জেনারেল ম্যানেজার মোঃ আবু তাহের বলেন, চাঁদপুর জেলার মধ্যে চলতি ২০১৭ সালের মধ্যে হাইমচর উপজেলাকে বিনা মূল্যে শতভাগ বিদ্যুতায়িত করা হবে। আমরা যেহেতু বিনা মূল্যে সংযোগ দিবো সেখানে কোন দালাল বা প্রতারককে টাকা পয়সা দিবেন না।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে হাইমচর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ মাসুম বলেন, প্রশাসন রজনিতিবীদ ও জনপ্রতিনিধিদের সর্বোচ্ছ লোক আমরা উপস্থিত হয়েছি আপনাদের সচেতন করার জন্য। সরকার যেখানে বিনা মূল্যে বিদ্যুৎ দেয় সেখানে দালালরা লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিবে তা হতে পারে না। টাকা দাবী কারি দালালদের আটক করে আমাদের জানান। আমরা ব্যবস্থা নিব।

হাইমচর থানা অফিসার ইনচার্জ রনোজিত রায় বলেন, বিদ্যুতের নাম করে যারা টাকা নিয়েছে এবং নিতে আসবে সকলের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

চাঁদপুর পল্লীবিদ্যুৎ নির্বাহি প্রকৌশলি হাফিজুর রহমান জানান, বিদ্যুৎ লাইন নির্মানে কোন টাকা পয়সা লেন দেন করা যাবে না। লাইন নির্মানের পর মাত্র ৬৫০ টাকা ফি রশিদের মাধ্যমে জমা দিয়ে মিটার সংযোগ চালুৃ করা হবে। এ ছাড়া কোন অতিরিক্ত খরছ বিদ্যুৎ সংযোগে লাগে না।

চরভৈরবী ইউনিয়নে ৭ও ৯নং ওয়ার্ডে ৬৫০ পরিবারে নতুন করে বিদ্যুৎ লাইন নির্মান ও সংযোগ প্রদানের নামে একটি চক্র মিটার প্রতি ৪ হাজার টাকা আদায় করার অভিযোগের প্রেক্ষিতে দালালদের দাবীকৃত টাকা না দেয়ার জন্য আয়োজিত সচেতনতা মূলক সভায় আরও বক্তব্য রাখেন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান এসএম কবির, উপজেলা আ’লীগ সহসভাপতি কাউসার মিয়াজি, উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক জাহাঙ্গীর হোসেন বেপারী, ফরিদগঞ্জ পল্লীবিদ্যুৎ ডিজিএম মোখলেছুর রহমান।

বিএম ইসমাইল
: আপডেট, বাংলাদেশ ১১:৪৩ পিএম, ২৫ অক্টোবর, ২০১৭ বুধবার
ডিএইচ

Leave a Reply

ইন্টারনেট কানেকশন নেই