Home / উপজেলা সংবাদ / ফরিদগঞ্জ / ফরিদগঞ্জে দলীয় লোকদের হামলায় যুবলীগ নেতার মানববেতর জীবনযাপন

ফরিদগঞ্জে দলীয় লোকদের হামলায় যুবলীগ নেতার মানববেতর জীবনযাপন

এক সময়ের ছাত্র রাজনীতি থেকে শুরু করে যুবলীগের রাজপথে অবিরাম পথচলা যে নেতার পদচারণ ছিল, রাজনৈতিক প্রতিহিংসায় সে নেতার আজ মানববতর জীবনযাপন।

জানা যায় ফরিদগঞ্জের ৭নং পাইকপাড়া ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মাজহারুল ইসলাম আকরাম রাজনীতির প্রতিহিংসার স্বীকার হয়ে দলীয় লোকদের অতর্কিত হামলায় পঙ্গুত্ব জীবনযাপন করে আসছে।

চলতি বছরের পহেলা জানুয়ারি প্রকাশ্যে দিবালকে ৭নং পাইকপাড়া ইউনিয়নের শাহী বাজারে যুবলীগের সভাপতি আকরামকে নিজ দলীয় লোক কাঁসারা গ্রামের দলিলুর রহমানের ছেলে শহিদুল ইসলাম পাটওয়ারি (৪০) ও আবু তাহের মিজির ছেলে মাসুদ আলম (২৮) অতর্কিত হামলা চালায়।

রড ও গাছের গুড়ির হামলায় যুবলীগ নেতা আকরামের পায়ের হাড়, মেরুদণ্ডের হাড় ভেঙ্গে যায়। রক্তাক্ত যখম অবস্থায় স্থানীয়রা উদ্ধার করে চাঁদপুর- জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করায়।

কয়েক সপ্তাহে হাসপাতালের বিছানায় চটপট করার পর পায়ে প্লাষ্টার অবস্থায় নিজ বাড়ী কাঁসারায় গৃহবন্দী অবস্থায় মানববতর জীবনযাপন করে আসছে।

এ ঘটনায় যুবলীগ নেতা আকরাম বাদী হয়ে শহিদুল ইসলাম ও মাসুদ আলমকে আসামী করে চাঁদপুর আদালতে মামলা দায়ের করে। যে মামলায় ওয়ারেন্ট জারি হলেও তারা প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়াচ্ছে বলে অভিযোগ প্রকাশ করেন যুবলীগের এ নির্যাতিত নেতা মাজহারুল ইসলাম আকরাম।

স্ত্রী ফারজানার আক্ষেপ এ কেমন রাজনীতি সময়ের পালাবদলে আমার স্বামী আকরামের উপর এমন সন্ত্রাসী হামলা চালানো হলো। আমাদের ছোট একটা পোল্ট্রি ফার্ম আছে তাও আজ বিলুপ্তির পথে।

এ বিষয়ে মামলার অভিযুক্ত আসামীদের সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করেও হামলার কারন জানা সম্বভ হয়নি।

জহিরুল ইসলাম জয়