Home / জাতীয় / রাজনীতি / পুরুষ নির্যাতন বন্ধে আইন করার দাবি হাজী সেলিমের

পুরুষ নির্যাতন বন্ধে আইন করার দাবি হাজী সেলিমের

চাঁদপুর টাইমস ডেস্ক:

হাজি সেলিম বলেন, ‘বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ লিখেছেন, “বিশ্বে যা কিছু মহান সৃষ্টি, চির কল্যাণকর…অর্ধেক তার করিয়াছে নারী, অর্ধেক তার নর”

(যদিও বাস্তবে এটি কাজী নজরুল ইসলামের কবিতা, কবিতাটির নাম ‘নারী’)।

নারীদের দ্বারা পুরুষ নির্যাতন বন্ধে পুরুষ নির্যাতন দমন আইন করার দাবি করেছেন স্বতন্ত্র সাংসদ হাজি মো. সেলিম। আজ মঙ্গলবার সংসদের পয়েন্ট অব অর্ডারে দাঁড়িয়ে অনির্ধারিত আলোচনায় তিনি এ দাবি জানান। এ সময় স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরী অধিবেশনের সভাপতিত্ব করছিলেন।

হাজি সেলিম বলেন, ‘প্রিয় সহকর্মী ভাই ও বোনেরা, হয়তো আমি দু-এক দিন সংসদে আছি। সংসদ থেকে পদত্যাগ করে আমি সিটি করপোরেশন নির্বাচন করব। তার আগে নারীদের হাত থেকে পুরুষদের রক্ষার জন্য এই আইনটি করার দাবি জানাচ্ছি। আমি চাই পুরুষ নির্যাতনের বিষয়ে একটা আইন হোক।’
তিনি আরো বলেন, নারী-পুরুষ এখন ফিফটি ফিফটি মিলিয়ে একশ। তাই ন্যায় বিচারের স্বার্থে পুরুষ নির্যাতন বিরোধী আইন করা দরকার।’
সমাজে বহু পুরুষ নির্যাতিত হচ্ছে দাবি করে হাজি সেলিম বলেন, বর্তমানে দেশে শুধু নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে আইন আছে। কিন্তু কোনো কোনো ক্ষেত্রে নারীও ভয়ংকর হয়। তারা ওই আইনের অপব্যবহার করে পুরুষদের হয়রানি করে।

হাজি সেলিম বলেন, ‘দেশের প্রধানমন্ত্রী নারী, বিরোধীদলীয় নেতা নারী, স্পিকার নারী, আকাশে নারী, হিমালয়েও নারী। তাই আমি চাই পুরুষ নির্যাতনের বিষয়ে একটা আইন হোক। উন্নয়নে নারীদের পাশে পুরুষ থেকেছে। পুরুষের পাশেও যেন নারীরা থাকে।’ এ সময় সংসদ সদস্যদের কয়েকজন কয়েকজন টেবিল চাপড়ে হাজি সেলিমের বক্তব্যকে সমর্থন জানান। তবে বেশির ভাগ নারী সংসদ সদস্য হইচই করে তাঁর বক্তব্যের প্রতিবাদ জানান।
এরপর রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর আনা ধন্যবাদ প্রস্তাব নিয়ে আলোচনা হয়। সবশেষে সংসদের অধিবেশন ২৯ মার্চ বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত মুলতবি করা হয়।

ইন্টারনেট কানেকশন নেই