Home / চাঁদপুর / চাঁদপুরে ৪ লঞ্চ ও যাত্রীদের অর্থদণ্ড

চাঁদপুরে ৪ লঞ্চ ও যাত্রীদের অর্থদণ্ড

চাঁদপুরে লঞ্চে অতিরিক্ত যাত্রী পরিবহন ও স্বাস্থ্যবিধি না মানায় এম. ভি. রফ রফ-২, এমভি মিতালী-৭, এমভি রাসেল ও এমভি শাহ আলী লঞ্চকে ৪৫ হাজার টাকা এবং ১৫ যাত্রী মাস্ক না পড়ায় প্রত্যেককে ৩শ’ টাকা করে মোট ৪ হাজার ৫শ’ টাকা জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

মাস্ক না পড়ায় জরিমানকৃত যাত্রীদের মধ্যে রয়েছেন- আল-আমিন, শাহবুদ্দিন, নবির হোসেন, মহসীন, রাসেলও ইব্রাহিম প্রমুখ।

শনিবার ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন বাংলাদেশ নৌ-পরিবহন অধিদপ্তরের মেরিন এন্ড সেফটির নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. রেজাউল করিম।

লক্ষ্মীপুর থেকে লঞ্চঘাটে আসা যাত্রী আল-আমিন বলেন, আমি বাড়িতে মাস্ক ফেলে আসি। পথিমধ্যে মাস্ক কিনে নিব ভেবেছিলাম। মনের ভুলে ও তাড়াতাড়ি ঘাটে মাক্স না কিনেই প্রবেশ করলে আমাকে ৩শ’ টাকা জরিমান করা হয়।

বাংলাদেশ নৌ-পরিবহন অধিদপ্তরের মেরিন এন্ড সেফটির নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. রেজাউল করিম জানান, এম. ভি. রফ রফ-২এর লঞ্চকে ২০ হাজার, এমভি মিতালী-৭ লঞ্চের কেন্টিনে ফ্রিজে রান্না করা খাবার ও কাঁচা খাবার একসাথে রাখার দায়ে ১০ হাজার ও ইঞ্জিন রুমে কাপড় রাখার দায়ে ৫ হাজার, এমভি রাসেলকে ৫ হাজার ও এমভি শাহ আলী লঞ্চকে ৫ হাজার টাকাসহ মোট ৪৫ হাজার টাকা জরিমান করা হয়েছে অতিরিক্ত যাত্রী পরিবহন ও স্বাস্থ্যবিধি না মানায়।

এছাড়া ১৫ যাত্রীকে মাস্ক না পড়ায় জরিমানা করা হয়েছে। সর্ব মোট ৪৯ হাজার ৫ ’শ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

চাঁদপুর বন্দর ও পরিবহনের উপ-পরিচালক কায়সারুল ইসলাম বলেন, এম. ভি. রফ রফ-২ লঞ্চটিকে অতিরিক্ত যাত্রীবহনের দায়ে ১৫ হাজার ও মাস্টারের কাগজপত্র মেয়াদ উত্তীর্ণের জন্য ৫ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, লঞ্চঘাটে আগত যাত্রীরা মাস্ক না ব্যবহার করায় প্রত্যেককে ৩শ’ টাকা করে ৪ হাজার ৫শ’ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনায় উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুর বন্দর ও পরিবহনের উপ-পরিচালক কায়সারুল ইসলাম, জেলা প্রশাসন কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ইমরান হোসাইন, জেলা পুলিশ, নৌ-পুলিশ, আর্মড পুলিশ ও কোস্টগার্ডের সদস্যবৃন্দ।

করেসপন্ডেট, ৯ আগস্ট ২০২০

ইন্টারনেট কানেকশন নেই