Home / উপজেলা সংবাদ / শাহরাস্তি / রোগীরা ঘরে বসেই ভিডিও কলিংয়ে পাচ্ছেন চিকিৎসা সেবা
চিকিৎসক (ফাইল ছবি)

রোগীরা ঘরে বসেই ভিডিও কলিংয়ে পাচ্ছেন চিকিৎসা সেবা

চাঁদপুরের শাহরাস্তি উপজেলার টামটা দক্ষিণ ইউনিয়নের বাসিন্দা পঞ্চাশোর্ধ হালিমা বেগম। দীর্ঘদিন যাবত তিনি কোমর ও হাঁটুর ব্যাথা, জ¦র ও গ্যাস্ট্রিকসহ নানা রোগে ভোগছেন। টাকার অভাবে ভালো কোন ডাক্তার দেখাতে পারছেন না। এসেছেন টামটা দক্ষিণ ইউনিয়ন পরিষদের তথ্য সেবা কেন্দ্রে।

স্কাইপিতে ভিডিও কলিংয়ের মাধ্যমে চিকিৎসককে একে একে বললেন তার সমস্যাগুলো। আর অপর প্রান্তে শাহরাস্তি উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রের চিকিৎসক তা নোট করে সাথে সাথেই তাকে সমস্যা সমাধানের জন্যে দিয়ে দিলেন ব্যবস্থাপত্র।

ব্যবস্থাপত্রটি ইউনিয়ন পরিষদের তথ্য সেবা কেন্দ্র থেকে তাকে প্রিন্ট আউট করে দিয়ে দেওয়া হলো। কিন্তু এই ব্যবস্থাপত্রের জন্যে তাকে কোন অর্থই ব্যয় করতে হলো না।

এভাবেই প্রতিদিন নিয়ম করে বিভিন্ন ইউনিয়বাসীদের চিকিৎসা সেবা দিয়ে আসছে শাহরাস্তি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে। ডিজিটাল পদ্ধতিতে চিকিৎসা ব্যবস্থা বদলে দিয়েছে শাহরাস্তি উপজেলার সেবার চিত্র।

বছরের শুরুতে শাহরাস্তি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা ডা. মানিক লাল মজুমদার চিকিৎসকদের নিয়ে নিজেদের উদ্যোগে চালু করেন ‘টেলিমেডিসিন’ সেবা।

পাশাপাশি উপজেলার সকল ইউনিয়ন পরিষদের ডিজিটাল সেন্টারের উদ্যোক্তাদের সাথে যুক্ত হয়ে স্কাইপের মাধ্যমে চিকিৎসা সেবা দিচ্ছেন।

স্কাইপিতে যোগাযোগের জন্যে হেডফোনসহ প্রয়োজনীয় ছোটখাট সরঞ্জাম চিকিৎসকেরা নিজেদের টাকায় কিনে নিয়েছেন। এতে করে হাসপাতালে না এসে স্কাইপি’র মাধ্যমে চিকিৎসকদের ব্যবস্থাপত্র অনুযায়ী ঔষধ সেবনের সুযোগ পাচ্ছেন উপজেলার প্রত্যন্ত গ্রামের অসহায় মানুষ।

স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রোগীদের দৈনন্দিন চিকিৎসা দানের পাশাপাশি চিকিৎসকরা স্কাইপের মাধ্যমে বিনামূল্যে রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিচ্ছেন। সরকারের দেয়া ল্যাপটপ ও ডিজিটাল যন্ত্রপাতি কাজে লাগিয়ে বাংলাদেশে এই প্রথম স্কাইপি’র মাধ্যমে চিকিৎসা সেবা দিচ্ছেন এখানকার চিকিৎসকরা।

উপজেলার ১০টি ইউনিয়নের তথ্য কেন্দ্রের সাথে স্কাইপে’র মাধ্যমে অজোপাড়া গাঁয়ের মানুষদের চিকিৎসা নিশ্চিত করছেন তারা।

এতে করে অসহায়, গরীব ও দুঃস্থ রোগীরা ডিগ্রিধারী চিকিৎসকদের পরামর্শ মোতাবেক ঔষধ সেবন করতে পারছেন।

শাহরাস্তি স্বাস্থ্য কম্পেক্সের এই উদ্ভাবনী ডিজিটাল চিকিৎসা ব্যবস্থার সাফল্যে অনুপ্রাণিত হয়ে সিভিল সার্জন জেলার প্রতিটি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে স্কাইপের মাধ্যমে চিকিৎসা ব্যবস্থা চালু করেছেন।

শাহরাস্তি উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মানিক লাল মজুমদার টেলিমেডিসিন সেবা সম্পর্কে চাঁদপুর টাইমসকে বলেন, ‘বয়স, ব্যস্ততা, দূরত্ব এসব কারণে যারা হাসপাতালে আসতে পারেন না বা আসতে চান না, স্কাইপি’র মাধ্যমে চিকিৎসার ফলে তারা মানসম্পন্ন সেবা পাচ্ছেন। এর মাধ্যমে ব্যবস্থাপত্র পাওয়ার জন্যে রোগীদের কোন প্রকার মূল্য দিতে হয় না। রোগীদের দেওয়া প্রতিটি ব্যবস্থাপত্রের জন্যে স্থানীয় সরকারের তহবিল থেকে ২০ টাকা করে দেওয়া হয় ইউনিয়ন পরিষদের তথ্যকেন্দ্রের উদ্যোক্তাদের।’

এই সেবা পেয়ে উপকৃত উপজেলাবাসী। এতে সহজেই ডাক্তারের পরামর্শ পেয়ে থাকেন বলে জানিয়েছেন রোগী ও এলাকাবাসী।

নিজেদের নিয়মিত কাজের পাশাপাশি স্কাইপি’র মাধ্যমে সেবা দেওয়া উপভোগ করেন চিকিৎসকরা।

গত ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০১৬ সালে চালু হওয়া এই সেবার মাধ্যমে এখন পর্যন্ত ৯শ’ রোগী চিকিৎসেবা পেয়েছে। স্কাইপের মাধ্যমে প্রতিদিন এখানে ৬-৮ জন রোগী চিকিৎসা সেবা নিয়ে থাকেন।

এ ব্যাপারে চাঁদপুর সিভিল সার্জন ডা. মো. সাইফুর রহমান চাঁদপুর টাইমসকে বলেন, টেলিমেডিসিন সেবার মাধ্যমে যেকেউ এখন একজন রেজিস্টার ডাক্তারের সেবা নিতে পারেন। ফলে তাদেরকে কোন হাতুড়ে ডাক্তারের খপ্পড়ে পড়তে হয় না।

শাহরাস্তিতে শুরু হওয়া এই সেবাটি বর্তমানে জেলার ৮টি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সেই দেওয়া হচ্ছে। এখন পর্যন্ত জেলায় সাড়ে ৩ হাজার রোগীকে স্কাইপি’র মাধ্যমে চিকিৎসা সেবা দেওয়া হয়েছে।

আগামীতে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পাশাপাশি স্কাইপি’র মাধ্যমে চিকিৎসা সেবা কমিউনিটি ক্লিনিকেও করা হবে বলে জানান এ কর্মকর্তা।

সারাদেশে এ ডিজিটাল পদ্ধতিতে চিকিৎসা সেবা চালু করা হলে উপকৃত হবে দেশের সকল মানুষ। বর্তমান সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে এগিয়ে যাবে দেশ।

প্রতিবেদক- শরীফুল ইসলাম : আপডেট, বাংলাদেশ সময় ৯:০০ এএম, ১ ডিসেম্বর ২০১৬, বৃহস্পতিবার
ডিএইচ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

বাইতুল কাদের জামে মসজিদে ইফতার ও দোয়া

চাঁদপুর ...